তিনটি বাংলা রুবাইয়াত

কবিতাসেন কবিতা হয় বীর্য় থেকে সঞ্জিবনী ফুল উড়িয়ে দ্যায় কল্পলোকের মনোহরী দুল তেলেসমাতি নারীর আসর ছোঁয়াছুঁয়ি সুর কবিতা কি নারীর উরু, নারীর এলো চুল! কচুপাতার কল রঙিন সুতোয় বিনি কাটে হাইমেন ছেঁড়া মন তোর-ই জন্য বয়ে চলে অনেক অনেক ক্ষণ বাকাট্টা হয় জীবন প্রহর ফালি ফালি চাঁদ বুঝতে পারি শেষ.

দু’টি রুবাইয়াত

খেলাপী জল সুর তুলেছে সুর তুলেছে অষ্ট-রবির মন অপূর্ণতা মাতিয়ে রয় হৃদয়ভাঙ্গা ক্ষণ কামুক নারী নিলাম করে বিজ্ঞাপনী সুর অভিসারে গোপন রবে নিলামকারী ধন। অনুর্ণনা সোনালী সুর বর্ণালী মেঘ আঁধার রাতে পেয়ে কষ্ট ফসিল বান্ধা রাখে এমনি আজব মেয়ে মেয়ের মেলা সাঙ্গ হবে রঙ ফুরানো শেষে রঙিন রাখে ছয়টি প্রহর.